ইউনূসের আত্নসমর্পণ ও জামিন

image

গ্রামীণ কমিউনিকেশন্স থেকে চাকরিচ্যুতদের করা পাঁচ মামলায় আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিন পেয়েছেন নোবেলজয়ী মুহাম্মদ ইউনূস। যার মধ্যে তিনটি মামলায় ইউনূসের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা ছিল। সর্বমোট ৫০ হাজার টাকা মুচলেকায় জামিন পান তিনি।

৩ নভেম্বর রোববার ঢাকার দ্বিতীয় শ্রম আদালতের চেয়ারম্যান জাকিয়া পারভীন তৃতীয় শ্রম আদালতের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান হিসেবে তার জামিন মঞ্জুর করেন। হাইকোর্ট তাকে ৭ নভেম্বরের মধ্যে বিচারিক আদালতে আত্মসমর্পণ করতে বলেছিল। বাকি দুটি মামলায় ৫ নভেম্বর দিন ধার্য থাকলেও বিদেশ সফরের সূচি থাকায় আগাম জামিনের আবেদন করেন ড. ইউনূস।

আগামীতে আইনজীবীর মাধ্যমে হাজিরা দেওয়ার অনুমতি চেয়ে আরেকটি আবেদন করেছিলেন ইউনূস। বিচারক তার আবেদন মঞ্জুর করে বলেছেন, অভিযোগ গঠন শুনানির দিন ইউনূসকে অবশ্যই হাজির থাকতে হবে।

গ্রামীণ ট্রাস্টভুক্ত প্রতিষ্ঠান গ্রামীণ কমিউনিকেশন্স থেকে চাকরিচ্যুত করায় শ্রম আদালতে এই পাঁচ মামলা দায়ের করা হয়। পাঁচ বাদী হলেন- গ্রামীণ কমিউনিকেশন্সের জুনিয়র এমআইএস অফিসার (কম্পিউটার অপারেটর) আব্দুস সালাম, শাহ আলম, এমরানুল হক, হোসাইন আহমদ ও আব্দুল গফুর। তাদের মধ্যে শাহ আলম প্রস্তাবিত গ্রামীণ কমিউনিকেশন্স শ্রমিক কর্মচারী ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক, আব্দুস সালাম প্রচার সম্পাদক এবং এমরানুল সদস্য পদে ছিলেন। ইউনিয়ন গঠন করার কারণে তাদের ‘বেআইনিভাবে’ চাকরিচ্যুত করা হয় বলে অভিযোগ করা হয়েছে মামলায়।

গ্রামীণ কমিউনিকেশন্সের চেয়ারম্যান ইউনূসের সঙ্গে ব্যবস্থাপনা পরিচালক নাজনীন সুলতানা ও উপ-মহাব্যবস্থাপক খন্দকার আবু আবেদীনকেও এসব মামলায় আসামি করা হয়। এর মধ্যে তিন মামলায় তৃতীয় শ্রম আদালত গত ৮ অক্টোবর তিন আসামিকে হাজিরের নির্দেশ দিয়ে সমন জারি করে। সে অনুযায়ী নাজনীন সুলতানা ও আবু আবেদীন ৯ আদালতে হাজির হয়ে আত্মসমর্পণ করলে তাদের জামিন দেন বিচারক।

আর ইউনূসের ভাই মুহাম্মদ ইব্রাহীম হাই কোর্টে একটি রিট আবেদন করেন। সেখানে বলা হয়, ইউনূস বিদেশে আছেন, দেশে ফিরে আদালতে যাবেন। বিমানবন্দরে তাকে যেন হয়রানি করা না হয়, সে বিষয়ে হাইকোর্টের নির্দেশনা চাওয়া হয় ওই আবেদনে। শুনানি শেষে বিচারপতি মইনুল ইসলাম চৌধুরী ও বিচারপতি খোন্দকার দিলীরুজ্জামানের বেঞ্চ গত ২৮ অক্টোবর ইউনূসকে ৭ নভেম্বরের মধ্যে আত্মসমর্পণ করতে বলে। সেই সঙ্গে বেঁধে দেওয়া সময়ের মধ্যে তাকে হয়রানি না করতে আইনপ্রয়োগকারী সংস্থাকে নির্দেশ দেওয়া হয়।

ঈদযাত্রায় প্রাইভেট গাড়ী চলাচলের অনুমতি দেওয়া সরকারের আত্মঘাতী সিদ্ধান্ত : যাত্রী অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ

image

মির্জাপুরে পুলিশ সুপারের খাদ্যসামগ্রী বিতরণ

image

সশস্ত্র বাহিনীর বর্তমান ও সাবেক ১০২০ জন করোনায় আক্রান্ত

image

দেশে ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ শনাক্ত ১৮৭৩, মৃত্যু ২০ জন

image

৩৩৫১ পুলিশ সদস্য করোনায় আক্রান্ত

image

৫৮৩ মসজিদে প্রধানমন্ত্রীর উপহার তুলে দিলেন তথ্য প্রতিমন্ত্রী

image

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর জুলিও কুরি শান্তি পুরস্কার প্রাপ্তির ৪৭তম বার্ষিকী আগামীকাল

image

ঈদেরদিন ঘরে থাকুন, আপনাদের জন্য আমরা আছি বাইরে : র‌্যাব মহাপরিচালক

image

কোভিড-১৯ এর চিকিৎসায় জেনেরিক রেমডেসিভির বাজারজাত শুরু করল বেক্সিমকো ফার্মা

image