১৫২টি প্রতিষ্ঠানকে সাড়ে ৯ লাখ টাকা জরিমানা

image

জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতরের (ডিএনসিআরপি) অভিযানে ১৫২টি প্রতিষ্ঠানকে ৯ লাখ ৫২ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। সারাদেশে ১০৭টি বাজারে (পাইকারি ও খুচরা) এ অভিযান চালানো হয়। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, মহামারী করোনা ভাইরাসের উদ্ভূত পরিস্থিতিতে নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্য স্থিতিশীল ও সহনীয় রাখাসহ নকল ও ভেজাল প্রতিরোধে নিয়মিত অভিযান চালানো হচ্ছে।

ডিএনসিআরপি সুত্রে জানা গেছে, ঢাকা মহানগরীর বিভিন্ন বাজারে এ অভিযান পরিচালনা করেন উপপরিচালক বিকাশ চন্দ্র দাস, সহকারী পরিচালক আবদুল জব্বার মন্ডল ও সহকারী পরিচালক মাগফুর রহমান। এছাড়া ঢাকার বাইরে ৫৭ জন কর্মকর্তা বিভাগে উপ-পরিচালক ও জেলায় সহকারী পরিচালকদের নেতৃত্বে বাজারে অভিযান চালানো হয়।

এ সময় পণ্যের মূল্য তালিকা প্রদর্শন না করা, অধিকমূল্যে পণ্য/ঔষধ বিক্রি করা, মেয়াদোত্তীর্ণ ও নকল পণ্য/ঔষধ বিক্রি করাসহ ভোক্তাস্বার্থ বিরোধী বিভিন্ন অপরাধের জন্য প্রশাসনিক ব্যবস্থায় জরিমানা আরোপ ও আদায় করা হয়। এছাড়া ঢাকাসহ সারাদেশে টিসিবির ন্যায্য মূল্যের ৩১টি ট্রাকসেল তদারকি করা হয়।

এ প্রসঙ্গে ডিএনসিআরপির মহাপরিচালক বাবলু কুমার সাহা বলেন, ভোক্তা স্বার্থ সংরক্ষণে ঢাকাসহ সারাদেশে নিয়মিত বাজার তদারকি কার্যক্রম অব্যাহত রয়েছে। আসন্ন ঈদকে সামনে রেখে সব ধরনের নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্য ও মান ঠিক রাখার জন্য সংশ্লিষ্ট ব্যবসায়ীদের আহবান জানান। এছাড়াও করোনা পরিস্থিতিতে দেশের সকল ভোক্তা সাধারণ ও ব্যবসায়ীদের স্বাস্থ্যবিধি মেনে পণ্য কেনা-বেচার অনুরোধ করেন।