বিদেশ ফেরতদের হোম কোয়ারেন্টিন নিশ্চিতে ডিএনসিসির অভিযান

image

রাজধানীর ভাটারা এলাকায় করোনা সচেতনতায় অভিযান পরিচালনা করেছে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন (ডিএনসিসি)। পাশাপাশি বিদেশ থেকে আসা বাংলাদেশি নাগরিকরা হোম কোয়ারেন্টিনের নির্দেশনা মেনে চলছে কিনা, সে বিষয়েও তদারকি করা হয়। ৩০ মার্চ সোমবার ডিএনসিসির বর্ধিত এলাকা অঞ্চল-৯ আওতাধীন ভাটারা থানার নতুন বাজার, খিলবাড়ি টেক, বসুন্ধরা আবাসিক এলাকাসহ আশেপাশের এলাকায় এই অভিযান পরিচালনা করা হয়। এতে সিটি করপোরেশনের পক্ষে নেতৃত্ব দেন অঞ্চল-৯ এর আঞ্চলিক নির্বাহী কর্মকর্তা হেমায়েত হোসেন।

এ সময় ওই এলাকার বিভিন্ন অলিগলি, আবাসিক এলাকা এবং বাজারে অবস্থান করছেন এমন মানুষের মাঝে সচেতনতামূলক বার্তা সম্বলিত লিফলেট বিতরণ করা হয়। হ্যান্ড মাইকিংয়ের মাধ্যমে এলাকাবাসীকে যথাসম্ভব ঘরে থাকার নির্দেশনা দেয়া হয়। খুব প্রয়োজনে বাইরে বের হলেও মাস্ক ও গ্লাভস পরে নিজেদের মধ্যে অন্তত দুই মিটার সামাজিক দূরত্ব মেনে অবস্থান করার নির্দেশনা দেয়া হয়। সেই সঙ্গে আশেপাশের এলাকায় সম্প্রতি যারা বিদেশ থেকে এসেছেন এবং যাদের হোম কোয়ারেন্টিনে থাকার নির্দেশনা আছে, তারা সেটি মানছেন কী না সে বিষয়েও তদারকি করা হয়।

অভিযানের বিষয়ে অঞ্চল-৯ এর আঞ্চলিক নির্বাহী কর্মকর্তা হেমায়েত হোসেন বলেন, এটা আমাদের নিয়মিত কার্যক্রম। এই সময়ে আমরা চাই নাগরিকরা যেন যথাসম্ভব ঘরে থাকেন। এরপরও কিছু মানুষ বের হচ্ছেন। প্রধান সড়ক বা রাজপথ সংলগ্ন জায়গাগুলোতে লোকজন বেশি সংখ্যায় ঘরে থাকার বিষয়টি মেনে চলছেন। কিন্তু কিছু কিছু এলাকায় একটু ভেতরের দিকে গেলে বোঝা যায় যে, অনেকেই ঘরে থাকছেন না। আমরা তাদের বোঝাচ্ছি। সচেতন করার চেষ্টা করছি। হেমায়েত হোসেন আরও বলেন, নাগরিকরা ঘরে থাকবেন। যারা অর্থনৈতিকভাবে স্বচ্ছল নন, আমরা তাদের খাদ্য সামগ্রী দেব। ইতোমধ্যে প্রতিটি ওয়ার্ডের কাউন্সিলকে ৫০০টি করে এবং সংরক্ষিত ওয়ার্ডের নারী কাউন্সিলরকে ১০০টি করে অস্বচ্ছল, অসহায় পরিবারের তালিকা করতে বলা হয়েছে। আমরা তাদেরও খাদ্য সামগ্রী পৌঁছে দেব।