অনন্য উচ্চতায় তাসনিয়া ফারিন

image

অভিনেত্রী তাসনিয়া ফারিন। শুরুটা বিলবোর্ড পরে বিজ্ঞাপন তারপর নাটকে অভিনয়। শুধু মাত্র গত বছরই প্রায় আশিটির মতো নাটকে অভিনয় করেছেন তিনি। নাটকের পাশাপাশি মডেলিংয়েও পেয়েছেন জনপ্রিয়তা। প্রথম অভিনয় করেন দু-হাজার সতেরো সালে ‘আমরা ফিরবো কবে’ নাটকে।

দু-হাজার সতেরো সালের সেপ্টেম্বরে প্রথম নাটকে কাজ করলেও দ্বিতীয় নাটকের জন্য দু-হাজার আঠারো সালের ডিসেম্বর পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হয়েছে। তারপর আর পিছু ফিরে তাকাতে হয়নি তাকে। এরপরের গল্প সবারই জানা। ভালোলাগা থেকেই কাজ করছেন তিনি। অভিষেকেই বেশভালো হয় তাসনিয়া ফারিনের অভিনয়। দর্শকের ভালোবাসায় মুগ্ধ তিনি।

তাসনিয়া ফারিনের মায়ের ইচ্ছে ছিলো অভিনয় করার। কিন্তু মায়ের ইচ্ছেটি পূরণ না হওয়ায় মেয়ের মাধ্যমে নিজের ইচ্ছেটি পূরণ করেন। ভাগ্য ও পরিশ্রম অল্প সময়ই তাসনিয়া ফারিনের বর্তমান ব্যস্ততা নাটক, বিজ্ঞাপন ও ফটোশুট ঘিরে। এরইমধ্যে শেষ করেছেন মেহেদী হাসান জনির ‘আমার তুমি’ নাটকের শূটিংয়ে। তার সহশিল্পী জিয়াউল ফারুক অপূর্ব। ঈদের পর সঞ্জয় সমাদ্দরের ওয়েব ফিল্ম ‘ট্রল’ দিয়ে ছুটি কাটিয়ে শূটিংয়ে অংশ নেন। লাইভ টেকনোলজিসের সিনেম্যাটিক অরিজিনাল অ্যাপে ওয়েব ফিল্মটি প্রকাশ পাবে। সামনে বিজ্ঞাপনে কাজ করবেন। যেটা এখনই জানাতে চান না ভক্তদের জন্য চমক থাকবে বলে জানান।

তবে এটুকু জানিয়েছেন বিজ্ঞাপনটি করবেন তার প্রিয় নির্মাতা মোস্তফা সরয়ার ফারুকীর নির্দেশনায়। এর আগেও তার নির্দেশনায় বিজ্ঞাপনে কাজ করলেও এখন পর্যন্ত নাটকে কাজ করা হয়নি। কারণ ফারিন যখন থেকে অভিনয় শুরু করেন তার পর আর ফারুকী নাটক নির্মাণ করেননি যার ফলে কাজ করা হয়নি। তবে ভবিষ্যতে তার পরিচালনায় নাটকে কাজ করার ইচ্ছে আছে। গেল ঈদে ফারিনকে দশটি নাটকে দেখা গেছে। নাটকগুলোর দর্শক সাড়াও ভালো ছিলো।

তাসনিয়া ফারিনের ছোটবেলার স্বপ্ন ছিল সংগীত শিল্পী হবেন। কখনো চিন্তাও করেননি অভিনয়ে আসবেন। গান নিয়ে স্বপ্ন দেখেন। তবে কাকতালীয় ভাবে গায়িকা না হয়ে হলেন নায়িকা! অভিনয়ে নাম লিখিয়েই বাজিমাত করেন। অভিনয়ে অনুপ্রেরণা ফারিনের মা। ফারিনের ক্যারিয়ারের মোড় ঘুরিয়ে দেয় ‘এক্স বয়ফ্রেন্ড’ নাটকটি।

ছোটপর্দার সবারই স্বপ্ন থাকে বড়পর্দায় কাজ করার। ফারিনেরও স্বপ্ন আছে। তবে তিনি এখনই বড়পর্দার জন্য প্রস্তুত নন। আর একটু সময় নিয়ে বুঝে শুনে আগাতে চান।

বলেন, ছোটপর্দা ঘিরে কখনো ভাবনা ছিলো না কাকতালীয় ভাবে অভিনয়ে চলে আসা। বড়পর্দা ঘিরেও পরিকল্পনা নেই। এরইমধ্যে বড়পর্দার জন্য প্রস্তাব পেয়েছি। কিছুদিন আগে শাকিব খানের বিপরীতে ‘প্রিয়তমা’ ছবিতে কাজের প্রস্তাব পেয়েছিলাম। কিন্তু তখন ছবিটি ফিরিয়ে দিতে হয়েছে কারণ, আমি এখনই চলচ্চিত্রর জন্য প্রস্তুত নই। আমার কাজ করতে ভালো লাগে কখনো গল্প নির্ভর কাজ পেলে চলচ্চিত্রে কাজ করব। গল্প নির্ভর কাজ হলে যে কোন মাধ্যমে দেখা যাবে।

তবে ছোটপর্দায় নিজেকে আর একটু সময় দিয়ে নিজেকে দক্ষ অভিনেত্রী হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করে চলচ্চিত্র নিয়ে ভাববেন। বুঝে শুনেই চলচ্চিত্রে কাজ করবেন।

ছোটবেলার স্বপ্নটি পূরণ করার কথা ভাবছেন ফারিন। গত এক বছর ধরেই পরিকল্পনা করছেন গায়িকা হিসেবে আতœপ্রকাশ করবেন। তবে ব্যস্ততার মাঝে সময় মিলছে না। তবে প্রস্তুতি নিচ্ছেন এবং সব কিছু ঠিক থাকলে হয়তো চলতি বছরই অভিনেত্রী থেকে সংগীত শিল্পী হিসেবে নিজেকে আতœপ্রকাশ করবেন। নিজের শখকে প্রাধান্য দিতে চান তাসনিয়া ফারিন।

দর্শক চাইলে অভিনয় পেশা হিসেবেই নিবেন তিনি। যেদিন থেকে দর্শক আর ফারিনকে চাইবেন না তারপর থেকে নিজেকে গুটিয়ে নিবেন। দর্শকের চাহিদাকে গুরুত্ব দিতে চান। নিজের ইচ্ছের বিরুদ্ধে কখনো যাবেন না। ভালো কাজের সুযোগ ও ভালো গল্প পেলেই কাজ করছেন। নজর দিয়েছেন কাজের সংখ্যার দিকে। শুরুতে যে ধরনের কাজ করেছেন এখন সে ধরনের পরিবর্তন এনেছেন। গল্প ও চরিত্রে বেশ নজর দিচ্ছেন ফারিন। সংখ্যার চেয়ে মানে বিশ্বাসী তিনি।