অস্ট্রেলিয়ার দাবানলে পুড়েছে প্রায় ২৫০ বাড়ি

image

অস্ট্রেলিয়ার উপকূলের দিকে এগিয়ে আসা দাবানল নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করছে অগ্নিনির্বাপণী কর্মীরা-রয়টার্স

অস্ট্রেলিয়ার উপকূলের দিকে এগিয়ে আসা দাবানলে প্রায় আড়াইশ’ বাড়ি পুড়ে গেছে। এর মধ্যে ভিক্টোরিয়া অঙ্গরাজ্যের ইস্ট জিপসল্যান্ডে কমপক্ষে ৪০টি আর নিউ সাউথ ওয়েলসে দুইশ’র বেশি বাড়ি সম্পূর্ণ ভস্মীভূত হয়েছে। ভিক্টোরিয়ায় বন্ধ করে দেয়া গুরুত্বপূর্ণ একটি সড়ক ১ জানুয়ারি বুধবার দুই ঘণ্টার জন্য খুলে দেয়া হয়। তবে ইংরেজি নববর্ষের প্রথম প্রহরেও নিউ সাউথ ওয়েলসে দুটো জরুরি মাত্রারসহ ১১২টি দাবানল জ্বলছিল। বিবিসি।

অস্ট্রেলিয়ার জঙ্গলে গ্রীষ্মকালে দাবদাহের কারণে দাবানল দেখা যায়। এবছর নিউ সাউথ ওয়েলস ও ভিক্টোরিয়া অঙ্গরাজ্যের দাবানল মারাত্মক আকার ধারণ করেছে। এই বছরের দাবানলে এখন পর্যন্ত দেশটিতে নিহতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৩ জনে। ৩১ ডিসেম্বর মঙ্গলবার দাবানল এগিয়ে আসতে থাকায় শহর ছেড়ে উপকূলের দিকে পালান হাজার হাজার মানুষ। নিউ সাউথ ওয়েলস অঙ্গরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী গ্লাডাইস ব্রেজিকলিয়ান বলেছেন, তুলনামূলক শীতল আবহাওয়ার সুযোগ নিয়ে রাস্তা পরিষ্কার ও বিদ্যুৎ সরবরাহ পুনর্বহালের চেষ্টা করবেন কর্মীরা। তবে আগামী শনিবার থেকে তাপমাত্রা আরও বাড়তে পারে বলেও সতর্ক করেছেন তিনি। গত কয়েক দিনে দাবানলে এ অঙ্গরাজ্যে তিনজন নিহত হয়েছেন। এখনও দুর্গম অনেক এলাকায় পৌঁছাতে না পারার কথা জানিয়েছে অগ্নিনির্বাপণ কর্মীরা। নিউ সাউথ ওয়েলসের ফায়ার কমিশনার শেন ফিটজসিমন বলেছেন, আমরা অনেক সাধারণ মানুষ আহত বা দগ্ধ হওয়ার তথ্য পেয়েছি। তবে রাস্তা বা হেলিকপ্টার ব্যবহার করে তাদের কাছে পৌঁছানো খুবই বিপজ্জনক।

ভয়াবহ দাবানল সমুদ্র তীরবর্তী বেশ কয়েকটি শহরের দিকে ধেয়ে আসতে থাকায় এলাকাগুলোর আতঙ্কিত হাজারও বাসিন্দা ও পর্যটক অস্ট্রেলিয়ার পূর্ব উপকূলের দিকে ছুটছে বলে স্থানীয় গণমাধ্যমগুলো জানিয়েছে। পরিস্থিতি মোকাবিলায় কর্তৃপক্ষ এরই মধ্যে অস্ট্রেলিয়ার সামরিক বাহিনীর সাহায্য চেয়েছে। আগুন নেভাতে যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডার দমকল কর্মীদেরও সহযোগিতা চাওয়া হয়েছে, জানিয়েছে রয়টার্স। দাবানল সোমবার রাতেই আরও দু’জনের প্রাণ কেড়ে নিয়েছে। এ নিয়ে অক্টোবর থেকে শুরু হওয়া এ দুর্যোগে নিহতের সংখ্যা ১১-তে পৌঁছেছে বলে কর্মকর্তারা নিশ্চিত করেছেন।

কয়েক মাসের ভয়াবহ এ দাবানল অস্ট্রেলিয়ার চার লাখেরও বেশি হেক্টর জমি বিনষ্ট করেছে; চলতি সপ্তাহের দাবদাহ এবং তীব্র বাতাস দাবানলকে ইন্ধন জোগাচ্ছে। বাড়তে থাকা তাপমাত্রা ও জোর বাতাসের কারণে ২০০রও বেশি বড়-ছোট দাবানলে এখন দেশটির দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলীয় অঙ্গরাজ্য নিউ সাউথ ওয়েলস ও ভিক্টোরিয়ার বিস্তৃত অঞ্চল পুড়ছে। ঝুঁকির মধ্যে আছে বেশ কয়েকটি শহরও।