ট্রাম্পের ‘দুর্দান্ত’ চিঠি পেয়েছেন কিম

image

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের কাছ থেকে চিঠি পেয়ে উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-উন বলেছেন, ট্রাম্পের চিঠি ‘দুর্দান্ত’। উত্তর কোরিয়ার সংবাদ সংস্থা কেসিএনএর কাছে চিঠিটির বিষয়বস্তুকে মজাদার উল্লেখ করে কিম বলেন, তিনি এটিকে গুরুত্ব দিয়ে পর্যালোচনা করবেন। চিঠি পাওয়ার প্রতিক্রিয়ায় ট্রাম্পের বিস্ময়কর সাহসেরও প্রশংসা করেন কিম।

গত ফেব্রুয়ারিতে কিম ও ট্রাম্পের বৈঠক কোন সিদ্ধান্ত ছাড়া শেষ হওয়ায় উত্তর কোরিয়া-যুক্তরাষ্ট্র আলোচনা এতদিন স্থবির হয়ে ছিল। তবে, দুই নেতার মধ্যে চিঠি চালাচালি হয়েছে বেশ কয়েকবার। সংবাদ মাধ্যম বিবিসির প্রতিবেদন অনুযায়ী, সবশেষ চিঠিটি কবে বা কিভাবে কিমের হাতে পৌঁছেছে তা জানানো হয়নি। হোয়াইট হাউজ থেকেও এ বিষয়ে এখন পর্যন্ত কোন মন্তব্য করা হয়নি।

গত কয়েক মাস ধরেই কিম সম্পর্কে বেশ ইতিবাচক কথাবার্তা বলছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। জুনের শুরুতে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জানান, তার কাছে দারুণ একটা চিঠি পাঠিয়েছেন উত্তর কোরিয়ার নেতা। এ সময় পিয়ংইয়ংয়ের চিঠি ‘দারুণ’ বলে মন্তব্য করেন ট্রাম্প। তিনি সাংবাদিকদের কাছে বলেন, কিম জং উনের নেতৃত্বে উত্তর কোরিয়ার বিপুল সম্ভাবনা রয়েছে।

এছাড়া, গত মে মাসে জাপান সফরকালেও কিমকে ‘ভেরি স্মার্ট গাই’ হিসেবে আখ্যা দেন ডোনাল্ড। সাম্প্রতিক আলোচনায় যুক্তরাষ্ট্র উত্তর কোরিয়াকে তার পারমাণবিক কর্মসূচি বাদ দেয়ার আহ্বান জানায়। আর উত্তর কোরিয়ার দাবি, তাদের ওপর সব নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করা হোক। আগামী সপ্তাহে দক্ষিণ কোরিয়ার প্রেসিডেন্ট মুন জা-ইনের সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে সিউল যাচ্ছেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। এর আগে কিমকে নতুন করে চিঠি পাঠালেন তিনি।