যুক্তরাষ্ট্রে বিক্ষোভ : দুই পুলিশ গুলিবিদ্ধ

image

সংগৃহীত

যুক্তরাষ্ট্রের কেন্টাকি অঙ্গরাজ্যের লুইসভিলে বিক্ষোভের সময় দুজন পুলিশ সদস্য গুলিবিদ্ধ হয়েছেন। বৃহস্পতিবার বিবিসি অনলাইনের প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়। ব্রিওনা টেলর নামের এক কৃষ্ণাঙ্গ নারীকে হত্যার ঘটনায় গ্র্যান্ড জুরি কাউকে অভিযুক্ত না করার পর লুইসভিলে বিক্ষোভ দেখা দেয়।

হাসপাতালকর্মী ব্রিওনা টেলরকে (২৬) গত ১৩ মার্চ কেন্টাকিতে তাঁর নিজ বাড়িতে গুলি করে মেরে ফেলা হয়। তাঁকে একাধিক গুলি করে পুলিশ। লুইসভিলের পুলিশপ্রধান জানিয়েছেন, বিক্ষোভ চলাকালে পুলিশের যে দুই সদস্য গুলিবিদ্ধ হয়েছেন, তাঁদের জীবনহানির আশঙ্কা নেই। এ ঘটনায় সন্দেহভাজন এক ব্যক্তিকে হেফাজতে নিয়েছে পুলিশ। উদ্ভূত পরিস্থিতিতে লুইসভিলে জরুরি অবস্থা জারি করা হয়েছে। এ ছাড়া সেখানে ন্যাশনাল গার্ড মোতায়েন করা হয়েছে।

ব্রেট হ্যানকিসন নামের পুলিশের এক কর্মকর্তাকে গ্র্যান্ড জুরি অভিযুক্ত করলেও এই অভিযোগের সঙ্গে ব্রিওনা হত্যার কোনো সম্পর্ক নেই। তাঁর বিরুদ্ধে যে অভিযোগ আনা হয়েছে, তা মূলত প্রতিবেশীর বাড়িতে গুলিবর্ষণের (ওয়ানটন এনডেঞ্জারমেন্ট। আর অন্য দুই পুলিশ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে অভিযোগ আনা হয়নি।

কেন্টাকির আইন অনুযায়ী, কেউ যদি মানুষের জীবনের মূল্য সম্পর্কে চরম উদাসীনতা দেখান, তবে তিনি ‘ওয়ানটন এনডেঞ্জারমেন্ট’ অভিযোগে অভিযুক্ত হতে পারেন। এ ধরনের ঘটনায় পাঁচ বছরের সাজার বিধান রয়েছে।