করোনার উপসর্গ নিয়ে সাংবাদিক হুমায়ুন কবির খোকনের মৃত্যু

image

দৈনিক সময়ের আলোর প্রধান প্রতিবেদক হুমায়ুন কবির খোকন মঙ্গলবার রাত ৯টা ৪১ মিনিটে উত্তরা রিজেন্ট হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেছেন(ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্নাইলাহি রাজিউন)। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিলো ৫০ বছর।

তিনি কয়েকদিন ধরে ধরে দাঁতের ব্যথায় ভুগছিলেন। মঙ্গলবার বিকেলে তিনি অসুস্থ হয়ে পড়েন। চিকিৎসার জন্য তাকে নিয়ে যাওয়া হয় উত্তরার রিজেন্ট হাসপাতালে। সেখানে আইসিইউতে তাকে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছিলো। রাতে তার অবস্থার অবনতি হয়। চিকিৎসকরা ধারণা করছেন তিনি কোভিড-১৯ রোগে আক্রান্ত ছিলেন। দেশে অন্তত ২০ জন গণমাধ্যমকর্মী করোনায় আক্রান্ত হলেও অনেকে সুস্থ হয়েছেন। তাদের মধ্যে কেউই এখন পর্যন্ত মারা যাননি। হুমায়ুন কবির প্রথম যিনি করোনা উপসর্গ নিয়ে মারা গেলেন। আজ তার করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট আসার কথা রয়েছে।

রিজেন্ট হাসপাতালের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ শাহেদ বলেন, ইফতারের আগ মুহূর্তে (হুমায়ুন কবির খোকন) হাসপাতালে আনা হয়। উনার প্রচণ্ড শ্বাসকষ্ট হচ্ছিল। অবস্থা খুবই খারাপ ছিল।৯টা ৪৫ মিনিট পর্যন্ত তাকে লাইফ সাপোর্টে রাখা হয়।

মৃত্যুর কিছু সময় আগে, করোনা পরীক্ষার জন্য সাংবাদিক খোকনের নাকের সোয়াপ সংগ্রহ করা হয়েছে বলে জানান তিনি।

বৃহত্তর কুমিল্লা সাংবাদিক সমিতির সভাপতি হুমায়ুন কবীর খোকন আগে দৈনিক আমাদের সময়, আমাদের অর্থনীতি পত্রিকায় প্রধান প্রতিবেদকের দায়িত্ব পালন করেছেন। তিনি ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির সিনিয়র সদস্য ছিলেন।

হুমায়ুন কবির খোকনের আকস্মিক মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ, আমিন মোহাম্মদ গ্রুপের চেয়ারম্যান এম এম এনামুল হক, উপ ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. রমজানুল হক নিহাদ, উপ ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. আমিনুল হক নাবিল, সময়ের আলোর প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ ও ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক কমলেশ রায়।

তার মৃত্যুতে সময়ের আলো পরিবারে শোকের ছায়া নেমে আসে।সাংবাদিক ও সহকর্মীরা হুমায়ূন কবির খোকনের মৃত্যুতে শোকে বিহ্বল হয়ে পড়েন। বিভিন্ন রাজনৈতিক দল ও সাংবাদিকদের সংগঠন তার মৃত্যুতে শোক জানায়।

হুমায়ুন কবির খোকনের গ্রামের বাড়ি কুমিল্লার মুরাদনগর।তিনি দুই মেয়ে, এক ছেলেসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।

এদিকে শ্বাসকষ্ট নিয়ে হাসপাতালে ভর্তির ঘণ্টাখানেকের মধ্যে মারা যাওয়া সাংবাদিক হুমায়ুন কবির খোকনের নমুনা পরীক্ষায় করোনাভাইরাসের সংক্রমণ পাওয়া গেছে। পরীক্ষার প্রতিবেদন পাওয়ার পর হুমায়ুন কবির খোকনের স্ত্রী ও ছেলেমেয়েকে হোম আইসোলেশনে পাঠানো হয়েছে বলে রিজেন্ট হাসপাতালের জনসংযোগ কর্মকর্তা তারিক শিবলী জানিয়েছেন।

ঢাকার উত্তরার ওই বেসরকারি হাসপাতালে নেওয়ার পর মঙ্গলবার রাত সোয়া ১০টার দিকে মৃত্যু হয় দৈনিক সময়ের আলোর প্রধান প্রতিবেদক খোকনের। তীব্র শ্বাসকষ্ট নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হওয়ায় তখনই চিকিৎসকরা তার কোভিড-১৯ আক্রান্ত হওয়ার সন্দেহের কথা বলেছিলেন।

হাসপাতালের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. শাহেদ বুধবার একটি গণমাধ্যমকে বলেন, আমরা রাতেই নমুনা সংগ্রহ করে পাঠিয়েছিলাম, ভোরে আমাদের জানানো হয়েছে, তার করোনাভাইরাস পজিটিভ এসেছে। হুমায়ুন কবির খোকনের গ্রামের বাড়ি কুমিল্লার মুরাদ নগরে। তিনি স্ত্রী, দুই মেয়ে, এক ছেলে রেখে গেছেন।

তাদের হোম আইসোলেশনে থাকতে বলা হয়েছে জানিয়ে রিজেন্ট হাসপাতালের জনসংযোগ কর্মকর্তা শিবলী বলেন, আমাদের ডাক্তাররা সার্বক্ষণিক তাদের সঙ্গে যোগাযোগ রাখবেন।

সাংবাদিকদের করোনা সংক্রমন পরীক্ষার নমুনা সংগ্রহের জন্য বুথ স্থাপন

সাংবাদিকদের করোনাভাইরাস সংক্রমন পরীক্ষার নমুনা (স্যাম্পল) সংগ্রহের জন্য ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে (ডিআরইউ) একটি বুথ স্থাপন করা হয়েছে।

হোমনায় নারী সাংবাদিক সোনিয়ার খাদ্যসামগ্রী বিতরণ

image

আজ বিশ্বব্যাপী পালিত হচ্ছে বিশ্ব মুক্ত গণমাধ্যম দিবস

image

সংবাদপত্রের জন্য ব্যাংক ঋণ চান মালিকরা

image

আলোকিত বাংলাদেশ ও জিটিভির সাংবাদিকদের চাকুরিচ্যুতের নোটিশ প্রত্যাহার দাবি ডিইউজের

করোনা দুর্যোগের মধ্যেই আলোকিত বাংলাদেশ ও গাজী টিভির (জিটিভি) সাংবাদিকসহ গণমাধ্যমকর্মীদের চাকুরিচ্যুতের নোটিশ প্রদানের ঘটনায় তীব্র উদ্বেগ ও উৎকণ্ঠা প্রকাশ করেছেন, ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়ন-ডিইউজের সভাপতি কুদ্দুস আফ্রাদ ও সাধারণ সম্পাদক সাজ্জাদ আলম খান তপু।

করোনায় প্রধানমন্ত্রীর কাছে এক সাংবাদিকের খোলা চিঠি

image

সংবাদমাধ্যমের স্বাধীনতা বাংলাদেশ একধাপ নীচে নেমে গেল

image

সম্পাদকদের বিরুদ্ধে মামলায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছে এডিটরস গিল্ড

image

প্রথম আলোর সাংবাদিক করোনায় আক্রান্ত, প্রধান কার্যালয় বন্ধ

image