বিজিবি ও রাশিয়ান হেলিকপ্টারস এর মধ্যে প্রশিক্ষণ সংক্রান্ত চুক্তি সম্পাদন

image

বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) হেলিকপ্টারের পাইলট, ফ্লাইট ইঞ্জিনিয়ার ও টেকনিক্যাল স্টাফদের প্রশিক্ষণের জন্য রাশিয়ান হেলিকপ্টার কর্তৃপক্ষের সঙ্গে চুক্তি করেছে বিজিবি। গত ৩০ মে মস্কোতে রাশিয়ান হেলিকপ্টারের সদর দফতরে এ চুক্তি হয়। বিজিবির পক্ষ থেকে চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মো. সাফিনুল ইসলাম। গত বছরের ডিসেম্বরে বিজিবিকে দুটি অত্যাধুনিক হেলিকপ্টার সরবরাহের বিষয়ে ওই প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে চুক্তি করেছিল বিজিবি।

৮ জুন শনিবার বিজিবি সদর দফতরের জনসংযোগ কর্মকর্তা মুহম্মদ মোহসিন রেজা জানান, গত বছর (২০১৮) ১৮ ডিসেম্বর বর্ডার গার্ড বাংলাদেশকে (বিজিবি) ২টি অত্যাধুনিক হেলিকপ্টার সরবরাহের জন্য রাশিয়ান হেলিকপ্টারের সঙ্গে চুক্তি সম্পাদিত হয়। সর্বাধুনিক প্রযুক্তির অটোপাইলটযুক্ত এই হেলিকপ্টারগুলো পরিচালনা ও রক্ষণাবেক্ষণের জন্য বিজিবির পাইলট, ফ্লাইট ইঞ্জিনিয়ার ও টেকনিক্যাল স্টাফদের বিশেষায়িত প্রশিক্ষণের জন্য বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ ও রাশিয়ান হেলিকপ্টার্সের মধ্যে রাশিয়ার রাজধানী মস্কোতে রাশিয়ান হেলিকপ্টারর্সের সঙ্গে আরেকটি চুক্তি হয়। প্রতিষ্ঠানের সদর দফতরে গত ৩০ মে একটি প্রশিক্ষণসংক্রান্ত চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে। বিজিবির পক্ষে বিজিবি মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মো. সাফিনুল ইসলাম এবং রাশিয়ান হেলিকপ্টার্সের ডিরেক্টর সেলস আরটেম ফেটিসভ চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন। চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ ও রাশিয়ান হেলিকপ্টার্সের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

বিজিবি সূত্র জানায়, অত্যাধুনিক এ দুটি হেলিকপ্টার সীমান্তরক্ষাসহ চোরাচালান প্রতিরোধে টহলে ব্যবহার করবে বিজিবি। এছাড়া সীমান্তে শত্রুপক্ষের ওপর নজরদারি রাখতে এ দুটি হেলিকপ্টারের সাহায্যে দুর্গম এলাকায় টহল আরো বেশি জোরদার করবে বিজিবি। অনেক এলাকা আছে যেখানে গাড়ি দিয়ে বা হেঁটেও যাওয়া সম্ভব নয়। হেলিকপ্টারের সাহায্যে ওই সব দুর্গম এলাকায় বিজিবি টহল জোরদার করতে পারবে।