নান্নু-বাশারের সঙ্গী হচ্ছেন রাজ্জাক

image

বাড়ছে বয়স, কমছে জাতীয় দলে খেলার সম্ভাবনা। ঘনিয়ে আসছে অবসরের ভাবনা। ক্রিকেটকে গুডবাই বলার আগেই আব্দুর রাজ্জাকের নতুন সম্ভাবনার দুয়ার খুলে দিয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)।

প্রতিযোগিতামূলক ক্রিকেট থেকে অবসরে যাননি। প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে উইকেটসংখ্যায় রয়েছেন চূড়ায়। রয়েছে ছোট-বড় আরো অর্জন। বাঁহাতি স্পিনে মুগ্ধতা ছড়ানো রাজ্জাক জাতীয় নির্বাচক হওয়ার মৌখিক প্রস্তাব পেয়েছে দেশের ক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিসিবির থেকে। তাতে সম্মতিও দিয়েছেন খুলনার সন্তান। সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে মিনহাজুল আবেদীন নান্নু ও হাবিবুল বাশারের সঙ্গী হতে যাচ্ছেন রাজ্জাক।

বিসিবির ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগের চেয়ারম্যান আকরাম খান গত বৃহস্পতিবার রাজ্জাককে ফোনে নির্বাচক হওয়ার প্রস্তাব দেন। রাজ্জাকও নিজের সস্মতি দেন। পরবর্তীতে দুইজনের আলোচনাও হয় বেশ কিছু বিষয় নিয়ে। তবে কবে থেকে দায়িত্ব নেবেন সেগুলো নিয়ে দুই পক্ষ এখনও আনুষ্ঠানিক আলোচনা করেননি।

এখনও ক্রিকেট থেকে অবসরে যাননি রাজ্জাক। সর্বশেষ ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ ক্রিকেটেও মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবের হয়ে চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন। খেলেছেন একটি ম্যাচও। ফলে অবসরের আগে নির্বাচক হিসেবে দায়িত্ব নিতে পারবেন কি না তা নিয়ে জটিলতাও রয়েছে। বিসিবি থেকে সে সুযোগ দিলে হয়তো মাঠ থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে ক্রিকেটকে বিদায় জানিয়ে নির্বাচকের দায়িত্ব নিতে পারেন তিনি।

শনিবার রাজ্জাক বলেন, আমার সাথে আকরাম ভাইয়ের কথা হয়েছে। কিন্তু একেবারেই প্রাথমিক আলোচনা। আমাকে জানিয়েছে, নির্বাচক হিসেবে আমাকে চাচ্ছেন। তবে আরও কিছু ব্যাপার এর সাথে জড়িয়ে আছে। আমি আরও একটু কথা না হলে কিছু বলতে চাচ্ছি না। আমি আসলে জানতে চাইবো, বিসিবির ভাবনাটা কেমন? আমার নিজেরও কিছু পরিকল্পনা আছে। আমি এখনও ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে চুক্তিবদ্ধ। সব মিলিয়ে আরও একটু আলোচনা না করে এখনই আমি সব কিছু বলতে পারছি না।

জাতীয় দল, এ দল, এইচপি টিমসহ জাতীয় লিগ, জাতীয় ক্রিকেট লিগ, বিপিএলের দল নির্বাচনে নির্বাচকদের কাজ করতে হয়। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের পাশাপাশি ঘরোয়া ক্রিকেটেও রাখতে হয় খোঁজ। দীর্ঘদিন ধরেই মিনহাজুল আবেদীন নান্নু ও হাবিবুল বাশার কাজগুলো করে আসছিলেন। কাজের জায়গা বৃদ্ধি পাওয়ায় একজন তৃতীয় নির্বাচকের চাহিদা তৈরী হয়েছিলো। এজন্যই তৃতীয় নির্বাচকের খোঁজে ছিলো বিসিবির ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগ। আর সেই খোঁজে তাদের প্রথম পছন্দ আব্দুর রাজ্জাক। আব্দুর রাজ্জাক বাদেও জাতীয় দলের আরেক সাবেক ক্রিকেটার শাহরিয়ার নাফিসের নামও শোনা যাচ্ছে নির্বাচক হিসেবে। তবে শেষ পর্যন্ত রাজ্জাকই নির্বাচক প্যানেলে ঢুকতে পারেন।