যুব বিশ্বকাপের দলকে শর্ত দিয়েছেন বিসিবি সভাপতি

image

বাংলাদেশ যুব বিশ্বকাপ দল

দক্ষিণ আফ্রিকায় অনুষ্ঠেয় ২০২০ আইসিসি অ-১৯ বিশ্বকাপ খেলতে বাংলাদেশ দল ঢাকা ত্যাগ করবে আগামী ৩ জানুয়ারি। ১৭ জানুয়ারি থেকে শুরু হবে বিশ্বকাপের মাঠের লড়াই। বৃহস্পতিবার (২৬ ডিসেম্বর) বিকেলে মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে বিশ্বকাপের স্কোয়াডে থাকা সদস্যদের ফটোসেশন হয়েছে। এ সময় উপস্থিত ছিলেন বিসিবির সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন, প্রধান নির্বাহী নিজামউদ্দিন চৌধুরী ও পরিচালক খালদে মাহমুদ সুজন প্রমুখ।

ফটোসেশন শেষে বিসিবি কথা বলেন খেলোয়াড়দের সঙ্গে। তাদের দিয়েছেন সাহস আর সঙ্গে শর্তও। শর্তের বিষয়ে পাপন বলেন, ‘ওদের বলেছি আজ পর্যন্ত আমি দক্ষিণ আফ্রিকা যাইনি। এমনকি জাতীয় দলের জন্যও না। কিন্তু ওরা সেমিফাইনালে ওঠলে যাবো।’ অর্থ্যাৎ তারা যদি সেমিফাইনালে ওঠতে পারেন তাহলে তাদের খেলা দেখতে দক্ষিণ আফ্রিকা যাবেন প্রেসিডেন্ট।

এ সময় পাপন খেলোয়াড়দের প্রশংসা ও করেন। তিনি বলেন, ‘ওদের এটাই বলেছি আগে কী হয়েছে সেটা মানুষ মনে রাখে না। এখন কী হচ্ছে সেটাই বড় কথা। তারা কিন্তু সাম্প্রতিক সময়ে বেশ ভালো ক্রিকেট খেলছে। তারা অনেক ভালো ফলাফলও পেয়েছে। এটা অস্বীকার করার কোন উপায় নেই। আমার দৃঢ় বিশ্বাস দক্ষিণ আফ্রিকাতেও ওরা ভালো করবে, ওদের এই ক্ষমতা আছে। কয়েকটা ছেলে তো অসাধারণ খেলা খেলছে এবং অনেক বেশি পোটেনশিয়াল।’

এর আগে ছয়জনকে স্ট্যান্ড বাই হিসেবে রেখে দল ঘোষণা করে বিসিবি। আকবর আলীকে অধিনায়ক ও তাওহীদ হৃদয়কেসহ অধিনায়ক করে ২১ ডিসেম্বর শনিবার রাতে এক বিবৃতি দিয়ে বিসিবি স্ট্যান্ডবাইসহ মোট ২১ সদস্যের দল ঘোষণা করে। আগামী বছরের ১৭ জানুয়ারি থেকে ১৬ দেশের অংশগ্রহণে দক্ষিণ আফিকায় শুরু হবে এই বিশ্বকাপ। চারটি গ্রুপে ভাগ হয়ে খেলবে দেশগুল। সি- গ্রুপে বাংলাদেশের সঙ্গে খেলবে, পাকিস্তান, স্কটল্যান্ড ও জিম্বাবুয়ে। বাংলাদেশের প্রথম ম্যাচ ১৮ জানুয়ারি জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে। ২১ তারিখ পাকিস্তানের বিপক্ষে ও ২৪ তারিখ আকবর আলীরা লড়বে স্কটল্যান্ডের বিপক্ষে। বাংলাদেশ সময় দুপুর দুইটায় খেলাগুলো শুরু হবে।