বিদ্যুৎ সঞ্চালন ও বিতরণ ব্যবস্থা ত্রুটিমুক্ত করতে হবে

চাহিদার চেয়ে বেশি বিদ্যুৎ উৎপাদন সক্ষমতা থাকলেও বিদ্যুৎ বিভাগ মানসম্মত বিতরণ ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে না পারায় নিরবচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ পাওয়া থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন অগণিত গ্রাহক। কিছুদিন ধরে রাজধানীর অনেক এলাকাতেই দিন-রাতে দুই-তিনবার বিদ্যুৎ চলে যাওয়ার ঘটনা ঘটছে। হঠাৎ করে মধ্যরাতে বিদ্যুৎবিভ্রাট সাধারণ মানুষকে অবাক করছে। এত বিদ্যুৎ উৎপাদনের পরও ‘অফপিক আওয়ার’-এ লোডশেডিং নিয়ে গ্রাহকদের মনে প্রশ্ন জাগছে। ‘লোডশেডিং’ আর ‘বিদ্যুৎবিভ্রাট’- বিদ্যুৎ বিভাগের এ দুটি শব্দের অর্থ এখনও সাধারণ গ্রাহক পর্যায়ে পরিষ্কার হয়নি।

অস্বীকার করার উপায় নেই যে, বিদ্যুতের বিতরণ ব্যবস্থাপনায় ত্রুটি আছে এবং ক্ষেত্র বিশেষে গাফিলতিও আছে। বস্তুত সরকার বিদ্যুৎ উৎপাদনের দিকে যে পরিমাণ মনোনিবেশ করেছে সেই পরিমাণ আগ্রহ নেই সঞ্চালন ও বিতরণ লাইনের উন্নয়ন ও সম্প্রসারণে। যে পরিমাণ বিদ্যুৎ জাতীয় গ্রিডে যুক্ত হয়েছে সে হিসাবে বিতরণ লাইন ৫০ থেকে ৬০ শতাংশে উন্নীত করা প্রয়োজন। অপরদিকে নতুন লাইন সম্প্রসারণ হলেও পুরনো লাইনের সংস্কারে সরকার তেমন কোন কাজ করেনি।

জরাজীর্ণ বিদ্যুৎ সঞ্চালন ব্যবস্থার সংস্কার ও আধুনিকায়ন দরকার নিরাপত্তার জন্যও। সবচেয়ে বেশি প্রয়োজন বিদ্যুৎ গ্রাহকদের অভিযোগগুলো আমলে আনা। কেন মাঝে মাঝে বিদ্যুৎ সরবরাহ লাইনে বিপর্যয় সৃষ্টি হচ্ছে তাও গ্রাহকদের অবহিত করা এবং সাময়িক ভোগান্তির কারণগুলো ব্যাখ্যা করা। বিদ্যুতে নিজেদের অর্জনের পরিসংখ্যান থাকলেও গ্রাহক সন্তুষ্টির বিষয়ে বিদ্যুৎ বিভাগের মূল্যায়ন নেই বললেই চলে। কখনও কখনও পরিসংখ্যান ব্যুরোর মাধ্যমে গ্রাহক সন্তুষ্টির বিষয়ে জরিপ করা হলেও সেটি করা হয় শীতকালে। এ সময় এমনিতেই বিদ্যুতের চাহিদা কম থাকে। গ্রীষ্মকালে দেশের বিদ্যুতের চাহিদা বেশি থাকলেও এই সময়ের কোন জরিপ করা হয় না। আমরা মনে করি, ধারাবাহিক প্রক্রিয়ায় এ জরিপের কাজটি করা হলে ব্যবস্থাপনার ঘাটতি দূর করা সহজ হবে।

সাধারণ মানুষকে যেন বিপর্যয়কর অবস্থায় পড়তে না হয়, সেজন্য জরুরিভিত্তিতে সঞ্চালন ব্যবস্থাপনায় আধুনিক প্রযুক্তির সমাবেশ ঘটানো দরকার। বিদ্যুৎ উৎপাদন বাড়ছে কিন্তু সঞ্চালন বিতরণ অবকাঠামো ও ব্যবস্থাপনার উন্নতি না হওয়ার কারণে উৎপাদন বৃদ্ধির সুফল কাঙ্ক্ষিত মাত্রায় পাওয়া যাচ্ছে না। দেশের বিদ্যুৎ ব্যবস্থার উন্নয়নে বিদ্যুৎ উৎপাদন বাড়ানোর পাশাপাশি সঞ্চালন ও বিতরণ ব্যবস্থার উন্নয়ন ত্বরান্বিত করতে হবে সরকারকে। দূর করতে হবে এ খাতের ব্যবস্থাপনাগত দুর্বলতাও। সর্বোপরি বিদ্যুৎ চুরি, অপচয় ও সিস্টেম লস রোধ করে সুষ্ঠু সরবরাহ নিশ্চিত করার কার্যকর উদ্যোগ নিতে হবে।

দৈনিক সংবাদ : শনিবার, ২৭ এপ্রিল ২০১৯, ৬ এর পাতায় প্রকাশিত

দেশের বাঁধগুলোর সক্ষমতা বাড়াতে হবে সংস্কারের লক্ষ্যে মনিটরিং করুন

ঘূর্ণিঝড় ফণী বাংলাদেশ অতিক্রম করে গেছে। ভারতের ওড়িশা উপকূলে আঘাত হানার পর পশ্চিমবঙ্গ হয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করে ঘূর্ণিঝড়।

পরিবহন সেক্টরকে মাফিয়ামুক্ত করুন

সাত দফা দাবিতে পরিবহন শ্রমিকদের ডাকা ধর্মঘটে গত সোমবার দিনভর দুর্ভোগ পোহাতে হয়েছে সাধারণ মানুষকে। সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত

জঙ্গিবাদের হুমকি মোকাবিলায় ঐক্য গড়ে তুলুন

মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেট (আইএস) বাংলাদেশ ও পশ্চিমবঙ্গে হামলার পরিকল্পনা করছে বলে অভিযোগ উঠেছে। গত বৃহস্পতিবার

গণধর্ষণ মামলার চার্জশিট প্রশ্নবিদ্ধ পুলিশের ভূমিকা

সুবর্ণচরে গণধর্ষণের শিকার নারীর অভিযোগ ছিল একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নিজের পছন্দের প্রতীকে ভোট দেয়ায় তার ওপর নির্যাতন হয়েছে

রমজানে দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে চাই কঠোর মনিটরিং

আসন্ন রমজানে দ্রব্যমূল্য সহনীয় পর্যায়ে থাকবে বলে আশ্বস্ত করেছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু

ই-বর্জ্য ব্যবস্থাপনায় রিসাইক্লিংয়ে পরিকল্পিত ও স্থায়ী উদ্যোগ নিন

ইলেকট্রনিক পণ্যের ব্যবহার বাড়ছে। একই সঙ্গে বাড়ছে ইলেকট্রনিক বা ই-বর্জ্যরে পরিমাণও। এসব ই-বর্জ্যরে দূষণ থেকে প্রাণ ও প্রকৃতিকে রক্ষা

বর্ষার আগেই ঢাকাডুবি কেন নগর কর্তৃপক্ষ কী করছে

চৈত্র মাসেই বৃষ্টির পানি জমে সয়লাব হয়ে যাচ্ছে রাজধানী ঢাকার বেশিরভাগ এলাকার রাস্তা

পুলিশের ভূমিকা খতিয়ে দেখতে হবে

ফেনীর সোনাগাজীতে মাদ্রাসাছাত্রীকে পুড়িয়ে হত্যাচেষ্টার মামলায় স্থানীয় পুলিশের ভূমিকা নিয়ে অসন্তোষ প্রকাশ করেছেন ভিকটিমের স্বজনরা।

স্বাভাবিক পুঁজিবাজার চাই অনৈতিক কারসাজি দমন করুন

দেশের পুঁজিবাজারে এখনও কারসাজি হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে। স্বার্থান্বেষী একটি গোষ্ঠী দুই স্টক এক্সচেঞ্জের সূচক সুকৌশলে নিয়ন্ত্রণ করছে এমন