বৈরুতে ভয়াবহ বিস্ফোরণে নিহত শতাধিক আহত চার হাজার

জাতিসংঘের তত্ত্বাবধানে তদন্ত হওয়া বাঞ্ছনীয়

গত মঙ্গলবার লেবাননের রাজধানী বৈরুতে ভয়াবহ এক বিস্ফোরণে সর্বশেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত ১৩৫ জন নিহত হয়েছেন, আহত হয়েছেন চার হাজারেরও বেশি মানুষ। বিস্ফোরণে রাজধানী বৈরুত এবং আশেপাশের এলাকায় ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। দেশ-বিদেশের গণমাধ্যম উল্লেখ করেছে, বিস্ফোরণে ঘরবাড়ি হারিয়েছে ৩ লাখের বেশি মানুষ। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হয়েছে ক্ষতি হয়েছে ৩০০ থেকে ৫০০ কোটি মার্কিন ডলারের সম্পদ।

বৈরুতের এই বিস্ফোরণে চারজন প্রবাসী বাংলাদেশি নিহত হয়েছেন। আমরা তাদেরসহ সব নিহতদের আত্মার মাগফিরাত কামনা করছি। আহত চার হাজারেরও বেশি মানুষের মধ্যে রয়েছেন ৯৯ জন বাংলাদেশি। এদের মধ্যে ৭৮ জন প্রবাসী বাংলাদেশি এবং ২১ জন জাতিসংঘের শান্তি মিশনে কর্মরত বাংলাদেশ নৌবাহিনীর সদস্য। আহত নৌবাহিনীর সদস্যদের মধ্যে কয়েকজনের অবস্থা গুরুতর।

বৈরুতের জনৈক নিরাপত্তা কর্মকর্তার উদ্ধৃতি দিয়ে মিডিয়ার জানাচ্ছে যায় মাত্র চার সেকেন্ডে সংঘটিত এই বিস্ফোরণের উৎস হচ্ছে বৈরুত বন্দরে রফতানির জন্য রক্ষিত ২ হাজার ৭০০ টন অ্যামোনিয়াম নাইট্রেট। বিস্ফোরণের ফলে রিখটার স্কেলে ৩.৫ মাত্রার ভূকম্পনের মতো কম্পন অনুভূত হয়। বিশেষজ্ঞদের অভিমত হচ্ছে অ্যামোনিয়াম নাইট্রেট নিজে থেকে কোন বিস্ফোরক নয় বারুদের অন্য কয়েকটি উপাদানের সঙ্গে মেশালেই অ্যামোনিয়াম নাইট্রেট বিস্ফোরক হয়ে থাকে, অর্থাৎ এই রাসায়নিক দ্রব্যটি হচ্ছে বারুদের একটি উপাদান। সুতরাং বিস্ফোরণের প্রকৃত ঘটনা এখনও জানা যায়নি। আমরা আশা করছি লেবানন সরকার দ্রুতই বিষয়টি তদন্ত করে আসল কারণ উদ্ঘাটন করবে।

বিস্ফোরণের কারণ যাই হোক না ঘটনাটি যে একেবারেই চরম দায়িত্বহীনতা এবং নিরাপত্তা ইস্যু সে সম্পর্কে কোন সন্দেহ নেই। ঘটনার পর সরকারের ব্যর্থতার কথা উল্লেখ করে লেবাননের একজন এমপি পদত্যাগ করেছেন। তিনি উল্লেখ করেছেন, নিরাপত্তা দিতে ব্যর্থ একটি সরকারের অংশ হয়ে থাকতে তিনি গৌরব বোধ করছেন না।

আমারা আমাদের প্রবাসী নাগরিক যারা আহত হয়েছেন, নৌবাহিনীর সদস্য যারা আহত হয়েছেন দ্রুত তাদের আরোগ্য কামনা করছি। একই সঙ্গে এই বিস্ফোরণের রহস্য উদ্ঘাটনের জন্য আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সাহায্য নিয়ে প্রকৃত কারণ বের করবার জন্য লেবানন সরকারের কাছে দাবি জানাচ্ছি। একই সঙ্গে নিহত এবং আহত সবাইকে আইন অনুযায়ী ক্ষতিপূরণ প্রদানের দাবিও জানাচ্ছি। প্রয়োজনে এক্ষেত্রে জাতিসংঘের সহযোগিতা গ্রহণ করতে পারে লেবানন সরকার।

মতপ্রকাশের বাধাগুলো দূর করুন

তথ্য অধিকার আইন হওয়ার এক দশক পেরিয়ে গেলেও দেশের খুব কম মানুষই জানে এ সম্পর্কে।

ছাত্রলীগের অন্যায়-অপরাধের শেষ কোথায়

সিলেটের মুরারিচাঁদ (এমসি) কলেজের ছাত্রাবাসে শুক্রবার (২৫ সেপ্টেম্বর) রাতে স্বামীকে বেঁধে রেখে এক তরুণীকে গণধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে।

করোনাকালে বাল্যবিবাহ রোধে বিশেষ উদ্যোগ নিতে হবে

করোনাভাইরাস সংক্রমণের এ সময়ে দেশে বাল্যবিবাহ প্রায় দ্বিগুণ হারে বৃদ্ধি পেয়েছে বলে জানা গেছে।

স্বাধীন কমিশনগুলোর স্বাধীনতা প্রশ্নবিদ্ধ হয়ে পড়ছে

একাধিক মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে তাদের দফতর বা সংস্থার অধীনে সংশ্লিষ্ট কমিশনকেও যুক্ত করা হয়েছে।

অসৎ পুলিশ সদস্যদের ফৌজদারি আইনে দৃষ্টান্তমূলক সাজা দিন

মাদক ও বিচারবহির্ভূত হত্যাকান্ড নিয়ে তীব্র সমালোচনায় পড়া কক্সবাজার জেলা পুলিশ ঢেলে সাজানো হচ্ছে।

কোন অজুহাতেই উপবৃত্তির টাকা থেকে শিক্ষার্থীদের বঞ্চিত করা যাবে না

সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের দেয়া উপবৃত্তির টাকা নিয়ে চলছে তুলকালাম কান্ড।

সাইবার অপরাধ রোধকল্পে সচেতনতা বৃদ্ধি ও ট্রাইব্যুনালের সংখ্যা বাড়ান

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমসহ ইন্টারনেটের কারণে যেমন যোগাযোগ বেড়েছে, তেমনি নানা ধরনের সুবিধা পাচ্ছে মানুষ। সেই সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বেড়ে চলেছে সাইবার অপরাধও।

ব্যাংক খাতে স্বচ্ছতা, জবাবদিহিতা ও সুশাসন ফিরিয়ে আনুন

ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশের (টিআইবি) নির্বাহী পরিচালক ইফতেখারুজ্জামান বলেছেন, ব্যাংকগুলো যে জনগণের আমানতে

অনলাইন ক্লাস নিয়ে নৈরাজ্য বন্ধ করুন

অনলাইন শিক্ষা নিয়ে দেশের বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে নৈরাজ্যকর পরিস্থিতির উদ্ভব হয়েছে। এ নিয়ে